সাতক্ষীরার ঝুম্পা বাঁচতে চায়, সুচিকিৎসার জন্য সাহায্যের আবেদন

সাতক্ষীরার ঝুম্পা বাঁচতে চায়, সুচিকিৎসার জন্য সাহায্যের আবেদন

মৃত্যুঞ্জয় রায় অপূর্ব: সাতক্ষীরার তালার কুমিরা ইউনিয়নের রাড়ীপাড়া গ্রামের মেয়ে  ঝুম্পা মজুমদার(২০) অনার্স প্রথম বর্ষের শিক্ষার্থী। রাড়ীপাড়া গ্রামের বাসিন্দা পিতা নেপাল মজুমদার তিন সন্তানের পিতা। তিন সন্তানের  মধ্যে ঝুম্পা মজুমদার বড়, দ্বিতীয় বোন প্রতিবন্ধী এবং ছোট বোনের বয়স আনুমানিক পাঁচ বছর। নেপাল মজুমদারের কোন পুত্র সন্তান নাই। ঝুম্পা মজুমদার অনার্স প্রথম বর্ষের পরীক্ষা দিতে যাচ্ছিলেন সাতক্ষীরাতে ইজিবাইক যোগে। ইজিবাইক যোগে সাতক্ষীরাতে অনার্স প্রথম বর্ষের পরীক্ষা দিতে যাওয়ার সময় পথিমধ্যে গত  ০৩/১১/২০২২ তারিখ ঝুম্পা মজুমদার, মর্মান্তিক দুর্ঘটনার শিকার হন এবং মাথার উপরের চুলের সকল চামড়া উঠে যায়। তার মাথার লম্বা চুল ইজিবাইকের চাকার রডের সাথে জড়িয়ে এই মর্মান্তিক দুর্ঘটনা শিকার হন। প্রথমে সাতক্ষীরা মেডিকেলে চিকিৎসার জন্য নিয়ে গেলে চিকিৎসকরা উন্নত চিকিৎসার জন্য খুলনা ২৫০ শয্য বিশিষ্ট হাসপাতলে ভর্তি করার পরামর্শ দেন।

রুগীর কাজিন কালিপদ মজুমদার বলেন, বর্তমানে ঝুম্পা মজুমদার খুলনা মেডিকেলের চিকিৎসাধীন। খুলনা মেডিকেলের অভিজ্ঞ চিকিৎসকরা বলেন, ভালো এবং উন্নত মানের চিকিৎসার জন্য ঢাকাতে নিলে ভালো হয়। এছাড়াও চিকিৎসকরা বলেন এটি অত্যন্ত ব্যয়বহুল চিকিৎসা।

ঝুম্পা মজুমদারের পিতা নেপাল মজুমদার বলেন, আমি খুবই হতদরিদ্র। আমি অন্যের জমিতে কৃষি কাজ করে সংসার চালায়। আমার মেয়ে বাঁচতে চায় আপনারা সবাই একটু সাহায্যের হাত বাড়িয়ে দিন না হলে আমার একার পক্ষে সম্ভব না তার চিকিৎসার জন্য অর্থ দেওয়া। আপনারা সবাই একটু একটু করে সাহায্যের হাত বাড়িয়ে দিয়ে আমার মেয়েকে বাঁচার সু্যোগ করে দিন।

এই হতদরিদ্র কৃষক খেতমজুর পিতার পক্ষে এই ব্যয়বহুল চিকিৎসা করানো দুর্বিসহ হয়ে পড়েছে।

কাজিন কালিপদ মজুমদার ঝম্পার চিকিৎসার জন্য  মানবিক মানুষের কাছে সাহায্যের আবেদন প্রার্থনা করেছেন। সাহায্য পাঠানোর ঠিকানা কালিপদ মজুমদার, রুগীর কাজিন কথা বলে দিতে পারেন পার্সোনাল বিকাশ নাম্বার:- 01725888730।  আপনারা সবাই একটু একটু করে সাহায্যের হাত বাড়িয়ে দিন এবং তাকে বাঁচার সুযোগ করে দিন। তিনি ঝম্পার সুস্থতার জন্য দোয়া চাইছেন ।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *