চেয়ারম্যান গোলাম ফারুক জামিনে মুক্তির পর ফের পরিষদের তালা খুলে বসিয়ে দিলেন ইউ এন ও।

চেয়ারম্যান গোলাম ফারুক জামিনে মুক্তির পর ফের পরিষদের তালা খুলে বসিয়ে দিলেন ইউ এন ও।

সাতক্ষীরা প্রতিনিধি মিজানুর রহমান

সাতক্ষীরার তালা উপজেলার সাত নং ইসলামকাটি ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান গোলাম ফারুক হোসেন, তিনি শান্তিপূর্ণভাবে পরিষদ পরিচালনা করে আসছিলেন কিন্তু হঠাৎ করে রাজনীতি প্রতিহিংসার কোন্দলের কারণে গত ৩০/০৩/২২ ইংরেজি তারিখ বুধবার একটি দোয়া অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন এমন সময় অনুষ্ঠানটি নাশকতা পরিকল্পনা মিটিং চলছে বলে এমন গোপন সংবাদের ভিত্তিতে তালা থানার পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌঁছে একজন মহিলা সহ ৪ জনকে গ্রেফতার করে, পরে ০৮/০৪/২২ ইংরেজি তারিখ শুক্রবার চেয়ারম্যান গোলাম ফারুক কে তার নিজ বাসা থেকে গ্রেপ্তার করে ১২জনের আসামির মধ্যে ৯ নম্বর আসামি করে তালা থানায় একটি মামলা রুজু হয়। পরিষদের চেয়ারম্যানের অনুপস্থিতিতে ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান হিসেবে ০৯/০৩/২২ তারিখ হতে ২০/০৩/২২ তারিখ পর্যন্ত দায়িত্ব পালন করে আসছিলো সাবেক যুবলীগ নেতা ও তিন নম্বর ওয়ার্ড ইউপি সদস্য মোঃ খায়রুল আলম সরদার।
পরে চেয়ারম্যান গোলাম ফারুক জামিনে মুক্তি পেয়ে পরিষদে উঠতে গেলে ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান খায়রুল আলম তাকে উঠতে নাদিয়ে হুমকি-ধামকি ও অশুভ আচরণ করে তাড়িয়ে দিয়ে অফিসে তালা ঝুলিয়ে দেন। বারবার উঠতে চাইলে একই তাণ্ডব করে, এমনকি গত ২৩/০৪/২২ তারিখে উপজেলা আইন শৃংখলা মিটিংয়ে চেয়ারম্যান উপস্থিতি টের পেয়ে সেখানেও হামলা করার চেষ্টা করে এই খাইরুল।
এমতবস্থায় চেয়ারম্যান গোলাম ফারুক বিষয়টি নিয়ে তালা উপজেলায় ইউএনও মহাদয়কে অবগত করলে পরে ইউনো মহোদয় জনাব প্রশান্তকুমার থানা পুলিশের সহযোগিতা নিয়ে গত ১৬/০৫/২২ তারিখে দুপুর ৩ ঘটিকার সময় চাবি উদ্ধার করে তালা খুলে চেয়ারম্যানকে বসিয়ে দিয়ে মতবিনিময় করেন এ সময় উপস্থিত ছিলেন থানা পুলিশের তদন্ত ওসি আবু কাওছার সাহেব উপজেলা পিআইও অফিসার ও ইউপি সচিব ওয়ার্ড মেম্বার সহ এলাকার বিভিন্ন দলের নেতাকর্মী ও শত শত ব্যক্তিবর্গ
সবশেষে মিষ্টিমুখ করে স্থান ত্যাগ করেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published.